ঐতিহ্যবাহী প্যাডেল স্টিমার ‘রকেটে’ একদিন

উপকূলীয় জেলা পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াতে বাড়ি হওয়ায় জলপথে স্টিমার ‘রকেট’ ভ্রমণের আছে মজার মজার অভিজ্ঞতা। কালের সাক্ষী প্যাডেল স্টিমার যা দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কাছে রকেট হিসেবে পরিচিত। শত বছর আগে ব্রিটিশ আমলে চালু হওয়া নৌপথের বিলাসবহুল নৌযান এখন অনেকটাই ব্যবহার অনুপযোগী।উপকূলীয় জেলা পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াতে বাড়ি হওয়ায় জলপথে স্টিমার ‘রকেট’ ভ্রমণের আছে মজার মজার অভিজ্ঞতা। কালের সাক্ষী প্যাডেল স্টিমার যা দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কাছে রকেট হিসেবে পরিচিত। শত বছর আগে ব্রিটিশ আমলে চালু হওয়া নৌপথের বিলাসবহুল নৌযান এখন অনেকটাই ব্যবহার অনুপযোগী।উপকূলীয় জেলা পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াতে বাড়ি হওয়ায় জলপথে স্টিমার ‘রকেট’ ভ্রমণের আছে মজার মজার অভিজ্ঞতা। কালের সাক্ষী প্যাডেল স্টিমার যা দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কাছে রকেট হিসেবে পরিচিত। শত বছর আগে ব্রিটিশ আমলে চালু হওয়া নৌপথের বিলাসবহুল নৌযান এখন অনেকটাই ব্যবহার অনুপযোগী।উপকূলীয় জেলা পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াতে বাড়ি হওয়ায় জলপথে স্টিমার ‘রকেট’ ভ্রমণের আছে মজার মজার অভিজ্ঞতা। কালের সাক্ষী প্যাডেল স্টিমার যা দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কাছে রকেট হিসেবে পরিচিত। শত বছর আগে ব্রিটিশ আমলে চালু হওয়া নৌপথের বিলাসবহুল নৌযান এখন অনেকটাই ব্যবহার অনুপযোগী।উপকূলীয় জেলা পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াতে বাড়ি হওয়ায় জলপথে স্টিমার ‘রকেট’ ভ্রমণের আছে মজার মজার অভিজ্ঞতা। কালের সাক্ষী প্যাডেল স্টিমার যা দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কাছে রকেট হিসেবে পরিচিত। শত বছর আগে ব্রিটিশ আমলে চালু হওয়া নৌপথের বিলাসবহুল নৌযান এখন অনেকটাই ব্যবহার অনুপযোগী।উপকূলীয় জেলা পিরোজপুরের মঠবাড়িয়াতে বাড়ি হওয়ায় জলপথে স্টিমার ‘রকেট’ ভ্রমণের আছে মজার মজার অভিজ্ঞতা। কালের সাক্ষী প্যাডেল স্টিমার যা দক্ষিণাঞ্চলের মানুষের কাছে রকেট হিসেবে পরিচিত। শত বছর আগে ব্রিটিশ আমলে চালু হওয়া নৌপথের বিলাসবহুল নৌযান এখন অনেকটাই ব্যবহার অনুপযোগী।

Leave a Comment

Your email address will not be published.